সুপ্রিমকোর্ট বারে ব্যালট ছিনতাই করতে গিয়েছিল বিএনপি, অভিযোগ কাদেরের

সুপ্রিমকোর্ট আইনজীবী সমিতিতে বিএনপি ব্যালট ছিনতাই করতে গিয়েছিল বলে মন্তব্য করেছেন ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের।

তিনি বলেন, গতকাল সুপ্রিমকোর্টে আপনাদের (বিএনপির) দলের এক নেতা ভোট চুরি করতে গিয়েছিল। এটা ধরা পড়ে গেছে। সুপ্রিমকোর্টের নির্বাচনে জিততে তারা ব্যালট পেপার ছিনতাই করতে গিয়েছে। আজকে সকালে নির্বাচনকে পণ্ড করতে হামলা করেছে।

বুধবার সকালে সুপ্রিমকোর্ট বারে গোলমালের পর বিকালে আওয়ামী লীগ কার্যালয়ে দলের এক সভায় বিএনপিকে উদ্দেশ্য করে ওবায়দুল কাদের এমন মন্তব্য করেন।

এদিন সুপ্রিমকোর্ট আইনজীবী সমিতির নির্বাচনে ভোটগ্রহণ শুরুর সময় আওয়ামী লীগ ও বিএনপি সমর্থক আইনজীবীদের মধ্যে উত্তেজনা সৃষ্টি হয়। এরপর পুলিশ লাঠি নিয়ে চড়াও হয়।একে বেশ কয়েকজন সাংবাদিকও আহত হন।

ওবায়দুল কাদের বলেন, ৪০০ জন সন্ত্রাসী পাঠিয়ে জঙ্গি কায়দায় তারা হামলা পরিচালনা করেছে, ভোট পণ্ড করার জন্য। ব্যালট পেপার ছিনতাই করতে ব্যর্থ হয়ে দফায় দফায় হামলা করেছে।

আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক বলেন, ভোট চোরের রাজা বিএনপি। আর উল্টো আওয়ামী লীগের ওপর দোষ চাপাতে চায়।

ওবায়দুল কাদেরের সভাপতিত্বে দলের ওই যৌথসভায় আওয়ামী লীগ সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য জাহাঙ্গীর কবির নানক, আব্দুর রাজ্জাক, কামরুল ইসলাম, মোস্তফা জালাল মহিউদ্দিন, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক হাছান মাহমুদ, মাহবুবু-উল আলম হানিফ, ঢাকা মহানগর উত্তর দক্ষিণের সভাপতি সাধারণ সম্পাদকসহ সহযোগী সংগঠনের নেতারা পস্থিত ছিলেন।