‘কোনো কিছু জোর করে করতে হয়নি’ পরিণীতিকে নিয়ে রাঘব চাড্ডা

নানা জল্পনার অবসান ঘটিয়ে চলতি বছরের ২৪ মে সন্ধ্যায় দিল্লিতে বাগদান সারেন বলিউড অভিনেত্রী পরিণীতি চোপড়া ও রাঘব চাড্ডা। এর পর থেকে তাদের ভক্তদের কৌতুহল শুরু হয় কবে হচ্ছে তাদের রিসিপশন। অবশেষে জানা গেল ৩০ সেপ্টেম্বরে অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে তাদের রিসেপশন।

একসময় পরিণীতি চোপড়া জানিয়েছিলেন, জীবনে কোনো দিনও রাজনীতির কোনো লোককে বিয়ে করবেন না।

কিন্তু বিধাতার ইচ্ছে অন্য। প্রায় এক দশকের বেশি বলিউডে কাটানোর পর পরিণীতির মন কাড়লেন কোনো অভিনেতা নন, তিনি রাজনৈতিক নেতা রাঘব চাড্ডা।
শোনা যাচ্ছে, সেপ্টেম্বর উদয়পুরের ‘দ্য ওবেরয় উদয়বিলাস’ হোটেল বসছে তাদের বিয়ের আসর।

প্রথম বার তাদের একসঙ্গে দেখা যায় মুম্বাইয়ের একটি রেস্তারাঁর বাইরে। যদিও যোগাযোগ বাড়ে রাঘব যখন নির্বাচনি প্রচারে পাঞ্জাবে যান। তখন বিয়ের আসর বসার কয়েক দিন আগে পরিণীতিকে নিয়ে মুখ খুললেন রাঘব।

তাদের প্রেমের শুরু পাঞ্জাবেই। গত বছর পাঞ্জাবে একটা লম্বা সময় কাটান রাজনীতিক রাঘব। কারণ সেখানকার বিধানসভা নির্বাচন। ওই সময় পাঞ্জাবে ‘চমকিলা’ ছবির শুটিং করছিলেন পরিণীতি। তখনই আলাপ হয় দুজনের।

অভিনেত্রীর সঙ্গে প্রথম সাক্ষাতের অভিজ্ঞতা কেমন ছিল? এমন প্রশ্নে রাঘব চাড্ডা বলেন, পরিণীতির সঙ্গে সাক্ষাতের মুহূর্তটা ছিল মায়াবী। কোনো কিছু জোর করে করতে হয়নি।

খুব স্বাভাবিকভাবেই হয়েছে সবটা। সেই দিন থেকে আজ অবধি আমি প্রতিদিন ঈশ্বরের কাছে কৃতজ্ঞতা জানাই আমার জীবনে পরিণীতিকে পাওয়ার জন্য।

তিনি আরও বলেন, সঙ্গিনী রূপে ওকে পেয়ে আমি খুশি। ভগবানকে প্রতিদিন ধন্যবাদ জানাই এ জন্য যে, তিনি আমাকে পরিণীতিকে দিয়েছেন।

পূর্বের খবরচ্যালেঞ্জে জাপানি ঋণের কিস্তি পরিশোধ
পরবর্তি খবরবিমানবহরে যোগ হচ্ছে নতুন ১০ এয়ারবাস