এলএনজি টার্মিনাল থেকে গ্যাস সরবরাহ শুরু

ঘূর্ণিঝড় মোখার প্রভাবে চট্টগ্রামের মহেশখালীর ভাসমান এলএনজি টার্মিনাল থেকে গ্যাস সরবরাহ বন্ধ ছিল। ফের এলএনজি সরবরাহ শুরু করেছে পেট্রোবাংলা।

সোমবার (১৫ মে) সন্ধ্যায় মহেশখালীর একটি টার্মিনাল থেকে ২৮০ মিলিয়ন ঘনফুট এলএনজি সরবরাহ করা হয়।

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন কর্ণফুলী গ্যাস ডিস্ট্রিবিউশন কোম্পানি লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক প্রকৌশলী মো. রফিকুল ইসলাম। তিনি বলেন, ‘মহেশখালীর একটি ভাসমান এলএনজি টার্মিনাল থেকে চট্টগ্রামে গ্যাস সরবরাহ শুরু হওয়ায় আজকের মধ্যে সংকট কিছুটা কেটে যাবে।’
 
সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, আপাতত একটি টার্মিনাল থেকে এলএনজি সরবরাহ শুরু হয়েছে। তবে এক্সিলারেট এনার্জির টার্মিনালটি গভীর সমুদ্র থেকে রওনা দিয়েছে। সেটি মঙ্গলবার (১৬ মে) মহেশখালী পৌঁছানোর কথা। সেটি এলে পাইপলাইনের সঙ্গে জুড়ে দিলেই এলএনজি সরবরাহ শুরু হবে।
 
 প্রকৌশলী মো. রফিকুল ইসলাম আরও জানান, দুপুরের পর থেকে চট্টগ্রামের বিভিন্ন আবাসিক এলাকায় গ্যাস সরবরাহ শুরু হয়েছে। ধীরে ধীরে এটা স্বাভাবিক হয়ে যাবে। এছাড়া সিএনজি স্টেশনগুলোতেও বিকেলে গ্যাস সরবরাহ শুরু হয়েছে। 

এদিকে তিন দিন পর চুলা জ্বলায় রান্না-বান্না করতে পেরে স্বস্তি প্রকাশ করেন বাসিন্দারা। যদিও কতক্ষণ গ্যাস থাকবে তা নিয়ে শঙ্কায় আছেন অনেকে।

এরআগে ঘূর্ণিঝড় মোখার প্রভাবে মহেশখালীতে সাগরে ভাসমান দুটি এলএনজি টার্মিনাল বন্ধ রাখায় গত শুক্রবার রাত থেকে গ্যাস সংকট শুরু হয়। রোববার (১৪ মে) সকাল থেকে নগরজুড়ে বন্ধ হয়ে যায় গ্যাস সরবরাহ। ফলে কোথাও কোথাও প্রায় তিনদিন ধরে জ্বলেনি চুলা।
পূর্বের খবরপরিণীতির ক্যারিয়ারের নতুন বাঁক
পরবর্তি খবরইংল্যান্ড সফর শেষে দেশে ফিরেছেন টাইগাররা